চ89%94 8১৪ 085০51%% উহ চছত পুতে 0 09802168561

শিক্ষাসার। কি

নট

অর্থাৎ

এতদ্দেশীয় বালক-বালিকাথণের শিক্ষার উপযোগী

নীতি গ্রন্থ | টং ০9

পাট

উপ ভি আজ আত একি পি এছ | সিং পর এসি কর ০, রাশি পি ০৮ পঞ্চম সংক্ষগণ। প্‌ সি না রখ কন পি পানি

সি পষ্ লাসিনাপা লি 6৯ ৮৭ ৯৮1

শ্রীতারাকুমার কবিরত্ব-প্রণীত |

70৪৫৭

081,010 74: 8. দু. [07 দঞএ চা & ৪80 মহ,

২২১ 1১৫ রক নেছা

1904

[42 25046 28556760% ]

মূপ্য 1%০ ছয় আন1।

12125১596 231 0 02৮ 07 ]তা& ৬] চা গত অভি এটা 1, ২0) 17১1৯70৬80৯ ভিুনলা। 450 গুা।

ভূমিকা

অনুসন্ধান করিলে ভারতের জ্ঞান-ভাঁগ!রে শিক্ষার উপযোগী সকল নীতি প্রাপ্ত হওয়া যায়, এবং সকল নীতি সবাতৃস্তন্টের ন্যায় আমাদের জীবনের উপাদান। নীতিমাত্রই বিশ্বজনীন। কিন্তু দেশতেদে লোকেত আঁচাঁর বাবহার কাধ্যপ্রণালী প্রভৃতি বিভিন্ন হওয়ায়, একই নীতি বিভিন্ন আকারে প্রতীয়মান হয় বে নীতি যে দেশে ঘে আকারে প্রস্কটিত হয়, তাহা সেই দেশে সেই আকারে যেমন মধুর হৃদয়গ্রাহী হইরক্াধীকে, অন্ত কোনও আকারে তেমন হয়না। তাই শ্বদেশীর আকারে কয়েকটা নীতি প্রদর্শন করিলাম আবার ম্বদেশে কোন বিষয়ের অভাব থাকিলে তাহা পরদেশ হইতৈ আনিয়া ভাঙ্গিয় চুরিয়া (দেশীয় ছাচে গড়িব। লইতে হয়। কিন্তু আমার এই গ্রন্থখানির জন্য (সেরূপ করিবার প্রয়োজন হয় নাই, মনোমত উপাদান শ্বদেশেই পাইয়াছি। সন্ভাবময়ী সীতা, প্রজা প্রাণা বাক্পুষ্টা, কুলপাবন বাণভট্র, ধর্বীর যুধিষ্ঠির, দয়াবীর জীমৃতবাহন, পুণাক্লোক অবস্তিবন্ম/, অন্ুতাপদগ্ধ রত্বাকর+ বিশ্বপ্রেমিক নারদ, সকল চরিত্র বাস্তাবক ছুর্ণভ। কর্ণ, অভিমন্গ্ লব, কুশ, চন্ত্রকেতু প্রভৃতি বালকের চরিত্রও অমূল্য | ভারতে প্রকৃত জ্ঞান ধম্মের পুনরুদ্দীপন। করিতে হইলে, বনুল পরিমাণে এই সকল চরিত্রেরই আশ্রয় গ্রহণ করা উচিত। আমি এই বিবেচন। করিয়া» এই কল দেশীয় উপাদানেই এই শিক্ষাপার প্রস্তুত করিলাম রামায়ণ, মহাভারত, মনুসংহিতা। রখুবংশ, উদ্তরচরিত, শ্রীহর্ষচরিত, কাদস্বরী, নাগানন্দ, রাজতরঙ্গিণী প্রভৃতি গ্রন্থ হইতে বিবিধ নীতি সংগ্রহ করিয়া! বথাস্থানে নিবেশিত করিয়াছি।

চিএ

সিটি কলেজের স্থযোগাা নসধ্যক্ষ ধীরবর শ্রীযুত উমেশচজ্জ দত্ত, এবং বিখ্যঠত পমালোচক শ্থপর্ডিত শ্রীধৃত চন্দ্রনাথ বসু, এই দুই বন্ধববের নিকট আমি বিষদে ঘথেষ্ট উপকার লাভ করিয়াছি ; এজন্য তাহাদের নিকট চিরজীবন খণী বরহিলাম।

ঈশ্বরচন্দ্র গুপ্রের কবিতাবলা হইতে “ম্বদেশ” এবং কাশীরাম দাসের মহাভারত হইতে 'অভিমন্ত্যু গ্রহণ করিলাম গ্রহণকফালে আবশ্ত কমত পরিবর্জন পরিবর্তন করিয়াছি শ্রীধুত উমেশ বাকু ইহাতে সংক্ষিপ্ত সীতাচরিত্র সন্নিবেশ করিতে বলেন, আমি তাহার ইচ্ছায় সে বিশ্বমোহন চরিত্রের সারমাত্র ইহাতে প্রদ€ন করিলাম সেই সঞ্ভাবময়ীর চরিত্র ষে জগতের নরনাবীমান্রেরই আদশ, তাহাই ইহাতে প্রকাশ করিল,"

সচরাচর বাঙ্গালা পাঠা পুস্তক হয় কেবল গছ্ভে না হয় কেবল পঞ্ছে রচিত হইয়া থাকে ; সুতরাং গছ্য পদ্ধ বা জন্য গ্রতোক ছাগ্রকে ছুইখানি পুস্তক ক্রয় করিতে হয়। আবার সকল পুস্তকের কলেবর এত বৃহত্থ যে, ছাত্রের সংবসরে তাহার অদ্ধেকও শেষ করিতে পারে না। এই অস্বিধা দেখিয়া আমি হহাতে বথাঞ্মে গদ্ভ পদ্ধা সল্গিবেশিত করিয়াছি, এবৎ যাহাতে সংবতৎসরে সমগ্র পুস্তক আয়ত্ত 'হুইতে পাবে, ইহার কলেবরও তদনুরূপ করিয়াছি। কলিকাতা

শ্ীতারাকুমার শন্ম। |

১০ই ফাল্তুন। ১২৯২ সাল। $

ভূতীয়বারের বিজ্ঞাপন এই সংস্করণে স্কানে ্ানে কিছ কিছু পরিবর্তিত হইল

উতারাকুমার শন্মা

২০শে পৌষ, ১০০৬ মাল।

বিষয় ত্তোন (পদ্য) গুরুশিষাসংবাদ (গদা) ... আত] পিতা পদ্য) রী পনযুতবাহনচরিত (গদা)... পরোপকার (পেদ্রা) পাওবগণের মহা প্রস্থান (গা) কর্ণচরিত পেদা) স্বাস্থ্যরক্ষ! (পদ) বাকপুষ্টা (গদ্য) চরিত্র (পদ্য) সীতাচরিত্র (গা) ধূর্নাতিতরণ গেদ) স্বদেশ (পদ্য) লব চন্জররকেতু (গদা) ... অভিমন্ুযু (পদ্য) অবস্তিবন্ম! (গন্য) বাণভট (গা) রত্বাকব্র-চরিত (পদ্য)

১১ -পাস্ইি তি ০.-২১ ২৭---২৯ ১৯৩৭ ৩৩ সর) ৩৯---৪৭ ২৫০ ৫০৫২ ৫২-৪ত ৫৪---৬* ৬৩২ পি ৭৮-৮০৪ ৮৪ দিও

৪) পপ ওটি তা

এছ লা এ৭ সিসি সিসি পির উত্স লী উপ সিসি পঠিত সি্সিতাসিপিতি উপসানি স্পিন সপ স্পট কিউ পািশী পিল £ পি পা পাশ এরি পীকপি

শিক্ষাসার।

স্তোত্র। ঈশ্বর

নিকুগ্ুভবনে কুন্থুদিত বনে পিককুল-কলরবে,

তরুর ছায়ায় ল্তায় পাতার তব প্রেষ হেরি সবে।

জননীর স্তনে দয়ালুর মনে অরুণ ভান্ুর করেঃ

উধার সমীরে নিবঝারে শিশিরে তবে প্রেম সদা বরে

ভূধরে কন্দরে প্রাস্তব্ে সাগরে যথা যাই তথা হেরি,

গগনে কি ধনে অখিল ভুবনে তব ছবি আহা মরি !

নর

পচ সা পিপাসা পভ 0৯ পালা তা৬ পঠিত নাত ০০০ ৫০৯ ১৯

মি টি হর 2 *

শা লএ৯ি৪ লে

তুমি দয়াময় - প্রেমের মিলয় বিশ্বের আশ্রয়ক্মি,

পাতকিতারণ তাপনিবারণ

্‌ জীবের শরণ তুমি

তোসারি নিদেশ. পাইয়া দিনেশ ব্রিভুবন আলো করে,

তব আজ্ঞাকর নিত্য স্থধাকর সকলের তাপ হরে

কলনিনাদিনী বত কল্লোলিনী ধুষিছে তোদার যশ;

ক্তারে মহৌষধি তব নিরবধি অবারিত কুপারস।

ভব আভ্ভাবলে জলাধির তলে কতই রতন জলে,

জলখারা ঘন করে বরষণ

শোভে ধরা শস্য-কলে।

জ্বলিছে ভ্বলন বহিছে পবন

শাসনে বিভু ! তোমার, হে ভয়ভঞ্জন ! নিত্য নিরঞ্জন! তুমি ভব্কর্পধার

এল দিসি তক পি

সং রর রর

রঃ গলা সিপিবি লিল কা কর শত পা পা ০৯ আন

+ ০০০ ০০০০০১

গুরু-শিষ্-সংবাদ

বারাণসীনগরে বেদ ব্রতনামে এক উপাধ্যায় মঠে ছাব্রগণকে শিক্ষাদান করিয়া থাকেন! একদা তিনি ছাত্রবুন্দে পরিবৃত আছেন, এমন সময় জীবনানন্দ নামে একটা দ্রীনবেশ বালক তাহার চরণসমীপে উপস্থিত হইল। জীব। (প্রণত হইয়া ) ভগবন্! প্রণাম করি। উপা। চিরজীবী হও, এস এস, এইখানে বোস। বহুস! ভূমি বড়ই প্রিয়দর্শন, কে তুমি ? €৫কাথা হইতে কি জন্যই বা এখানে এসেছ ? | জীব। আমি দীনহীন বালক, বিদ্যাশিক্ষার জন্য আপনার সেবা করিব বলিয়া বঙ্গদেশ হইতে আপনার পদতলে আসিয়াছি। উপা। বশুস! তোমার নাম কি? তোমার মা আছেন ? বাপ আছেন ত% তোমার কথাগুলি যেন অম্বতবিন্দুর ন্যায় মধুরঃ তোমাকে দেখিয়া ন্সেহে আমার হৃদয় আর্জ হইতেছে, অতএব তোমার আত্মবত্তাস্ত বল। | জীব। ভগবন্! আমার দরিজ্র পিতার আমি একমাত্র জীবনসর্বস্ব পুত্র ছিলাম। ভিনি আমার “জীবনানন্দ” এই' নাম. রাখিয়াছিলেন। আমাকে স্তন্যপায়ী শিশু রাখিয়। মা পরলোক গমন করেন। পুত্রন্নেহবশতঃ পিতা অভি কষ্টে

৪... শিক্ষাার 1

1 ০০০০০ ০০

৪৯৮

পিন সসিশ পি পিল সা নী করণ দি জা টাস্ক সলা লতা

সেই শোক সংবরণ করিয়া এক।কী আনারই প্রতিপালনে নিযুক্ত হইলেন। উপা। “বস ! তার পর তার পর?

জীব এখন আমার তের বৎসর বয়সে পিতাও পরলোকে গিয়াছেন। আমি নিরাশ্রয় হইয়াছি। (উদ্ধে দৃষ্টিপাত পূর্বক স্বর্গগত পিতাকে উদ্দেশ করিরা) হা পিতঃ! হা! পুত্রময়- জীবিত ? আজি তোমা বিনা আমার জীবন শুন্য হইয়াছে

উপা। অহ্হ! এই সকল সাংসারিক দুর্ঘটনা নিতাস্তই মন্মরভেদী বস! আশ্বস্ত হও আশ্বস্ত হও) দুঃখ করিও না, ঈশ্বরই অশরণের শরণ। সেই করুণাময় পিতৃহীনের পিতা, মাতৃহীনের মাতা, বন্ধুহীনের বন্ধু, নিরাশ্রয়ের আশ্রয়। বগুস! তাহাকেই সর্ববান্তঃকরণে আশ্রয় কর। সেই দীননাথ বিন! আর কে দীনজনের সহায় আছেন ?

জীব। উঃ! মনে পড়িতেছে আমার মনে পড়িতেছে ! পিতাও মৃত্যুকালে আমায় এই উপদেশ দিয়াছিলেন।

উপা। বস! তোমার পিতা মৃত্যুকালে কি উপদেশ দিয়াছিলেন ? |

জীব। ( সজলনয়নে ) আমি পিতার ম্বত্যুকাল উপস্থিত দেখিয়া যখন তাহার চরণ ধরিয়। কাদিতে লাগিল।ম, তখন পিতা সেই অবস্থায়ও অতি কষ্টে উঠিয়া বসিলেন, এবং আমাকে বুকের ভিতর লইয়া কপোলে কপোল,সংলগ্ন করত কাশ কাপ চক্ষু মুত্রত করিলেন |

গুরু-শিষ্য-সংবাঁদ

লিন ঠা ছি রাহ জি

উপা। অহো! অপজ্যন্সেহ্ের কি প্রভাব! ইহার আকর্ষণে মুমূ ্্ ব্যক্তিও- ক্ষণকাল মৃত্যুযন্ত্রণা বিস্মৃত হয়। বস ! তার পর তার পর জীব। তার পর স্থিরনেত্রে আমায় অনেক ক্ষণ ধরিয়। দেখিলেন। অনন্তর, ক্ষীণ স্বরে যেন কত কষ্টেই বলিলেন, "বুদ! তুমি যে পিতৃগতগ্রাণ তাহা আমি জানি। ন্েহের এমনি আকর্ষণ যে, স্ধীর ব্যক্তিরও চিত্তকে আকুলিত করে বিপদও এড়াইবার নহে বস! কাতর হইও না। বাবা ! তোমার এই মনোদ্বঃখে আমার যে কষ্ট হইতেছে, মৃত্যু- যন্ত্রণাও তত কষ্টের নাহ। ধৈর্য *ধারণ কর। জগতে ঈশ্বরই প্রকৃত বন্ধু, পিতা মাতা কয় দিনের জন্য ? উঠ বগুস 1. সময়ে যাহ। কর্তব্য তাহা কর সর্বদা যেন তোমার ঈশ্বরে ভক্তি থাকে ঈশ্বরে সদাই যার দৃঢ় ভক্তি রয়, কিভয়াক ভয় তার কিভয়কিভয়? ষে দেব অনস্তকোটী জীবের আশ্রয়, কভু কি তাহার ভক্ত নিরাশ্রয় হয় ? এই ,কথা বলিতে বলিতেই পিতা আমার চিরকালের মত্ব নয়নযুগল মুদ্রত ক'রলেন ( জীবনধনন্দ এই কথা বলিতে বলিতে, হরিষ্চন্র নামে একটী ছাত্র কাদিতে কীদিতে তাহার সম্মুখে আসিল “হায়! আমি অতি পাপিষ্ঠ ! আমি কি দুক্ষপ্মই করিয়াছি! ভ্রাতঃ! আসার

জজ. শিক্ষা্ার 1.

ঈদ, ৮০ সপ চর ৯৮৭ জা কটি জিদ সে সই লী অপছিকী ৬, ৮৯পল সখ ভিন ক৮ » ভিত স্িপা ৯টি টি লক রত অপ উদ ভে খ্তলী ওটি হত জব উপ ইক গর সাও এত উল ওলাব্খকাকলঁল

অপরাধ ক্ষমা কর,” নে এই বলিয়। টু আলিগন করিল; এবং অবিরল অভ্রধারায় তাহার 'বক্ষঃস্থল অভিষিদ্ করত রোদন করিতে লাগিল

উপ1। বগুস! হরিশ্চন্দ্র! একি? কি হইয়াছে? কিজন্ত এরূপ রোদন করিতে ?

হরি। পিতঃ ! আমার অপরাধ ক্ষমা করুন আমি হুক্ষাধ্য করিয়াছি এখন অন্ুতাপে দগ্ধ হইতেছি

উপা॥। কেন বস! তুমিকি করিয়াছ ?

হরি। এই জীবনানন্দ এই মঠের অনুসন্ধান করিতে করিতে পথে আমায় দেখিতে পাইয়া বলিল,--ভ্রাতঃ ! আমি বিদ্দেশ হইতে জাসিতেছি,_ভগবান্‌ (গুরুদেবের নাম করিয়া ) কোন স্থানে ছাত্রগণকে অধ্যয়ন করাইতেছেন” ? আমি ইহার নিতান্ত হীন বেশ দেখিয়া অবভ্। করিয়া বলিলাম.-- আঃ! কেরে তুই ভিখারীর ছেলে! আমাদের শুরুদেবকে খু'জিতেছিস্‌ ? আমি এই কগা বলিয়া, ইহার অতি কাতর বাক্যেও আর কর্ণপাত না করিয়াই এখানে চলিয়া আসিলাম। এখন আমি ইহার শোকের কথা শুনিয়া এবং ইহার প্রতি মামার দুর্বাবহ?রের কথা ভাবিয়া শোকে অনুতাপে' দগ্ধ হইয়া ইহার শরণাপন হইয়াঁছি। এক উপা। বহস হরিশ্চন্দ্র! তুমি না বুঝিয়া অতি নিষ্ঠুর করিয়াছ, কিন্তু তুমি ক্ষমার পাত্র, কেননা অনুতাপে দ্ধ হইতেছ। যখন তুমি আপনা আপনি অনুতপ্ত হইয়া,

গুরু-ক্িষা-সংঘাদ খং

কতকাল পেস, ডা কা, ৪৯ আপনা হননি কাকি, গা পদ কিপ্াছি লক লাগ ৮৯ বত 6২৮৯৫ বারা ৪৯ পপ কাল ১৮৮০৮ লা ললিত বাস লা লাকি, পাত চে ০০ ৮৬ লগ পজঠ

তখদ আর বিষয়ে তোমায় কোন উপদেশ দিতে হইবে না, ভথাপি কিছু বলি শুন।

হরি। কৃতাঞ্জলি হইয়া! আনতমস্তরকে ) পিতঃ ! আজ্ছ! করুন

উপা। দয়াই সকল ধর্মের মূল। দয়া না থাকিলে সকল, বিদ্কাই নিক্ষল হয়। মিষ্ট কথা দয়ার ভূষণ। অতএব বুস 1-- তোমার হৃদয় মধুক্ষরণ করুক, তোমার রসন! মধুক্ষরণ করুক, তোমার চরিত্র মধুক্ষরণ করুক, এই বিশ্বসংসার তোমার' মধুময় হউক

বস! আমি একথাগুলি কেবল তোমাকেই বলিতেছি না, সকল ছাত্রই আমার কথ! শ্রবণ কর। বশুস হরিশ্চন্দ্র ! তুম একটা অন্যায় কন্ম করিয়া যে অনুতাপ করিতেছ, ইহাতে আমি তোমার উপর সন্তুষ্ট হইয়াছি। আজি হইতে এই জীবনানন্দ তোমার প্রিয়বয়স্ত হইল ওহে বগুস ? জীবনানন্দ ! আজি তোমার বড় সৌভাগ্য। দেখ! তুমি বন্ধুহীন ছিলে, আজি হইতে হরিশ্চন্দ্র তোমার পরম বন্ধু হইল। বগ্স! স্সেহ প্রদর্শন কর, তোমার প্রিয়বন্ধুর অপরাধ ক্ষমা কর।

হরি পপ্রেরবযহ্য ! আমার ক্ষমা! কর।

জীব। (সহর্ষে)ট তোমার বন্ধুত্বলাভে আমি কুতার্থ হইলাম (হরিশ্চন্দ্রকে গ্চু আলিঙ্গন করিয়া ) ভ্্রাতঃ ! ভাগাক্রমে ভূমি আমার প্রিপ্নবয়স্য হইলে ভূমি আর আমার +নকট অপরাধী নহ। আমি এই সংসারে বন্ধুহীন হইয়া

| শিক্ষাসার

/) নু লি হাম এসি দি 42525425587, স্টিম চিঠিটি

পিসি লি রী সন রী উল সি পক চাদ লিড

স্বৃতপ্রায় ছিলাম এখন ভোমায় বন্ধু পাইয়া যেন আবার প্রাণ গাইলাম। ভ্রাতঃ! আমি অতি দীনহীন, তাই দয়া করিয়া সেই দয়াময় ঈশ্বর মিত্ররত্ব মিলাইলেন।

হরি। (সানন্দে) প্রিয়বয়স্ত ! আমি কৃতার্থ হইলাম, আনন্দে পুলকিত হইলাম (বাহু প্রসারিত করিয়া) এস ভাই ! এস, আমায় আলিঙ্গন কর। ( ইহা বলিয়া জীবনানন্দের কট আলিঙ্গন করিল )।

উপা1। ( সকল ছাত্রের প্রতি) বসগণ! আমি অতি দরিদ্র, তাই ভাবিতেছি এখন কি উপায়ে এখানে জীবনানন্দের জীবিক! নির্ববাহ হয়? একিকা ভোজন করে? কোথায় বা শয়ন করে ? |

উপাধ্যায় ইহ! বলিবামাত্রত ছাত্রগণের মধ্যে একটা কোলাহল উঠিল। “আমারই ভোজনের অদ্ধভাগ দিক,” “এ আমার ভ্রাতা)” “এ আমার সখা)” “এ আমার গ্রিয়বয়স্যা)” যুগপৎ সকলেই এইরূপ কহিতে লাঁগিল।

উপা। ( শুনিয়। হর্ষগদগদন্ধরে ) বসগণ! তোমাদের হৃদ্বয় মধুময় আমি ধন্য! আমি পুণ্যবান্‌। যে আমার তোমরা হেন ছাত্র আমি বি্যাদানের ফল লাভ করিলাম আমার পরিশ্রম সার্থক হইল। আমি তোমাদের মধ্যে বাস করিয়া আর স্বর্গবাসও, চাহি না। তোমাদের ম্যায় ছাত্রের যাহার অমুল্য নিধি, সে আবার দরিদ্র! আমি তোমাদের হৃদয় জানিবার জন্যই, এরূপ বঁলয়াছিলাম। আমই

গুরু-শিষ্য-সংবাদ

০০ শিক প্রীত লা দাদি লালন লাছিলিলীত রি লী তানি জান লাকি সদ লীন সাত ৮৬ লা লিক % 25 ভাস ৮5 ঢাক পি 2 পি 2৬ চি ৩৬ ছি লীন ভি চাস ভি ৮৯ লি পাজি পাজি পপি ভাসি পা পান শাসন লস রশ পি ইল গন্ধ লি ভন্ছ। পা জা

জীবনানন্দের জীবনোপায় করিব, আমিই ইহার পিতার কাধ্য এবং মাতার কাধ্য করিব ভোমারা সকলে যেমন আমার সন্তান, এটাও তেমনি আমার সম্ভান। অত্তঞব* বুসসকল ; তোমরা ইহাকে সর্বদা সোদরনির্বিবশেষে দেখিবে, প্রাণের তুল্য ভাল বামিবে। তোমাদের জ্ঞানলাভের সঙ্গে সঙ্গে সকলের প্রতি মিত্রভাব দিন দিন বদ্ধিত হউক তোমরা গুণের আলোকে সংসার আলোকিত কর। (জীবনানন্দের প্রতি ) এস এস জীবনানন্দ তুমি বড় শ্রান্ত হইয়াছ, তোমায় ক্ষুধার্ত দেখিতেছচি। বস! অগ্রে পানভোজনাদি কর, পরে যখন স্বস্থ হইয়া বদিবে, তখন তোমার অবৃশিষ্ট বৃস্তান্ত শ্রবণ করিব বস! তুমি এখানে আমায় পিতা বলিয়া জানিও, ছাত্রগণকে সহোদর বলিয়। ভানিও) এই বিষ্ভালয়কে তোমার গৃহ বলিয়া! জানিও, তুমি এখানে পরম স্তখে বাস কর। (মকল ছাত্রের প্রতি ) পুত্রগণ ! দিবাভাগের আর অল্পই অবশেষ আছে, আমাদের সায়ং ংকুত্য সম্পাদন করিবার সময় উপস্থিত অতএব তোমরা সকলে মিলিয়৷ সমস্বরে অধ্যরনভঙ্গসূচক বিদ্যান্তবটী গান কর। ছাত্রগণ। (সকলে যুগপৎ উঠিয়। কৃতাঞ্জলিপুটে সমস্বরে)-_

জয় জয় ভারতি পরমারাধ্যে !

পরমানন্দবিধায়িনি বিদ্ভে !

তব বরদানে সর্বৰ সমৃদ্ধি,

তব গুণগানে লভি সব সিদ্ধি;

শিক্ষাপার ৭.

শে এপাশ 2৬ উরি লীত ভা তল পসরা পির সির তা পছি পিপিপি 5িডে পপপ্টি এছ কান্ট কািপএাসি পল ৯২ সী ২১ পাটি পপ হশর্ষিলা

মানদ-গগনে তিমির আগেষ,

নাশ বিতরি তুমি করুণালেশ ; দেহ মা! ভক্তি, দেহ মা শক্তি, দেহ মা! ভূক্তি, দেহ মা! মুক্তি; দুঃখনিবারিপি মঙ্গলদাত্রি !

প্রণমি তোমারে জ্ঞানবিধাত্রি ! তুমি জগধাত্রী তুমি জগমাতা, ত্রিজগত গায়ত তব গুণগাথা স্খদে বরদে ত্রিভুবনধন্যে !

জয় জয় ভ্ঞারতি ভক্তশরণ্যে !

মাতা পিতা

পিতা মাতা সর্বশ্রেষ্ঠ গুরু ছুই জন, ধাহার প্রসাদদে লোকে হেরে ভূবন। জীবনের মহাত্রত তাদের সেবন,

সে ব্রত পালিৰে পুত্র করি প্রাণ পণ। সদা স্ুতী জনক জননী যার গুণে,

ব্খার্থ স্থপুত্ধ সেই ধন্য ভূাবনে £ «

জীম়তপানন-চরিত ৯৯

শি লি ভাবি তত ৪৯৮ ভি লদ পা ৪৯০৯ ১০ তি ৪৬৪৯ ০০৩৯ উল তত সত ০৯৮৭ উন্মলসি পা % লাজ্ছলে পম সিশ পাত সলাত ৮২১০০: লরি লি ছি ১5১০৭

সদ্দাই সন্তান তরে পিতা মাতা অকাতরে যে কষ্ট সহেন হায়! সঁপি দেহ প্রাণ,

তাদের সে উপকার কে শুধিবে তার" ধার কে আছে দেবত। পিতামীতার সমান ?

মাতার হাদয়াধারে ঝরে শ্মেহ শত ধারে কিবা আছে বস্তুধায় সে স্থধা-সমান ?

ধার যত্ত্ে বাচে প্রাণী সাক্ষাৎ ঈশ্বরী তিনি

হৃদয়-মন্দিরে তারে পুজিও সন্তান !

মা বোলে ডাকিলে সব যন্ত্রণ! জুড়ায়, মায়ের সমান বস্তু আছে ক্লি ধরায় ?। সন্তান ! মায়ের তূমি নাড়ীছেঁড়া ধন. ভূলো না ভুলো না তারে ভুলো না কখন। সন্তানের প্রত্যক্ষ ঈশ্বর মাতা -পিতা, তারের গ্রীতিতে প্রীত সকল দ্রেবতা।

উজ ইন

জীমূতবাহন- চরিত

হেমকুট নগরে জীমূতকেতু নামে এক রাজা ছিলেন। ভিনি বহুকাল প্রজাপালন করিয়া, বুদ্ধদশায় সর্ববগুণাকর আৌীমুতবাহন নামক পুত্রকে যৌবরাজো অভিষেক করিলেন জনন্তর, বানপ্রস্থাশ্রম পরি গ্রহের জন্ক পতীর সহিত মলয়াচলের

১২ শিক্ষাঁসার |

০০০৩

উপত্যকায়, গিয়া বাস করিলেন। “আমি পিতা-মাতার চরণসেবা পরিতাগ করিয়া গৃহে থাকিব না এই স্থির করিয়া জীমূতবাহন'ও পিতা মাতার অনুগমন করিলেন, এবং দিবারাত্রি কাযমনোবাক্যে তাহাদের শুশ্রাধা করিতে লাগিলেন।

তাহাদের সেই স্থানে অবস্থানকালে, একদ মিত্রাবন্থ নামে এক রাজকুমার জীমুতবাহনেব সহিত সাক্ষাৎ করিতে আসিলেন।. তিনি যথোচিত অঠিথিসগকার লাভ করিয়া, বিনীতভাবে কহিলেন; ভ্রাতঃ ! আমার নাম মিত্রাবস্থ, আমি মলয়রাজ বিশ্বাবস্থুর পুত্র, আমি পিতার আদেশক্রমে আপনার নিকট আসিয়াছি। পিতা আপনাকে বলিয়াছেন,_-বগুস ! জীমূতবাহন! আমার মলয়বতী নামে একটা কন্যা আছে; কন্যা আমাদের জীবনঙ্গরূপ। আমি তাহাকে তোমায় প্রদান করিতেছি, তুমি গ্রহণ কর। কন্যাটা যেন মুস্তিমতী ভক্তি, বস! তুমিও যেন মুঝ্ডিমান্‌ ধন্ম। অতএব তোমরা উভয়ে এই স্পৃহণীয় পবিত্র সন্বন্ধে পরস্পব সন্বদ্ধ হও ।”

তাহা শুনিয়। জামূতবাহন অতি বিনীতভাবে কহিলেন, ভ্রাতঃ! আপনাদের সহিত শ্লাঘনীয় সম্বন্ধ স্থাপন করিতে কে না কামনা করে? কিন্তু আমি পিতা-মাতার চরণসেবা হইতে চিত্তকে বিষয়ান্তরে নিয়োজিত করিতে পারিব না। বিশেষতঃ পুজনীয় পিতা মাত! যখন জীবিত আছেন; তখন ধিষয়ে আমি সম্পূর্ণ পরাধীন। অতএব আমি প্রস্তাবে লকম্ত নহি "ইহা গুনিয়। মিত্রাবন্থ ভাবলেন, ইনি ভাল্গ

| ভীমৃতবাহন-চরিত | ১৩ কথাই বলিতেছেন, ইনি গুরুজনকে উল্লঙ্ঘন করিবেন না। অতএব ইনি ঘাহাতে পিতার আজ্জায় মলয়বতীকে বিবাহ করেন তাহাই করিতে হইবে। এই বিবেচন। করিয়া, তিনি বিষয় তাহার পিতাকে গিয়। জানাইলেন।

অনন্তর জীমৃতবাহুন পিতা মাতার আজ্জঞায় সাক্ষাড লক্ষ্মীর ম্যায় মলয়বতীকে বিবাহ করিলেন। বিবাহোৎ্সব সম্পন্ন হইলে, বধু পিত্রালয় হইতে শ্বশুরের তপৌোবনে আগমন করিলেন, এবং চরিত্রগুণে সকলের হৃদয়ে অমুতধার৷ বর্ষণ করত স্থুখে বাস করিতে লাগিলেন।

একদা] জীমৃতবাহন মিত্রাবস্থুর, সহিত সমুদ্রবেলা দর্শন করিতে গিয়াছিলেন। তিনি বেলার অনতিদুরে মলয়গিরির শিখরাবলীর ন্যায় অস্থিন্তুপ দর্শন করিয়া বিশ্মিত হইয়! জিজ্ঞাসিলেন, _সখে মিত্রাবস্তর ! সকল অস্থিরশি কাহাদের ? মিত্রাবন্্ত কহিলেন, সকল নাগগণের অস্হিরাশি। তাহা শুনিয়া জীমূতবাহন উদ্ধিগ্র হইয়৷ জিজ্ঞ্াসিলেন, হায় ! কিরূপে এক সময়ে এত নাগের মৃত্যু ঘটিল? মিত্রাবন্থ কহিলেন, সকল মৃত্যু এক সময়ে ঘটে নাই। ইহা যেরূপে ঘটিয়াছে তাহ শুন। ' ব্বিনতানন্দন গরুড় প্রতিদিন পাতাল হইতে লাগ আনিয়া এই স্থরনে ভক্ষণ করিতেন অনন্তর ক্রমে সমস্ত নাগের বিনাশাশক্কা দেখিয়া বাস্কি গরুড়কে কহিলেন, হে খগেশ্বর! আপনার আগমনওয়ে সহস্র সহজ নাগবধূর গর্ভপাত হয়, শিশুসন্তানগুলি'ও পঞ্চত্ব প্রাপ্ত হয়।

2৪... .. শিক্ষাসার ? এইরূপে আমাদের বংশলোপ হইতেছে অতএব আমাদের সহিত একটা নিয়ম করুন। আমি আজি হইতে প্রতিদিন একটা করিয়া নাগ আপনার ভোজনের নিমিত্ত সমুদ্রতীরে পাঠাইব। পক্ষিরাজও তাহার প্রস্তাবে সম্মত হইলেন তদবধি নাগরাজ প্রতিদিন এই স্থানে এক একটী মহানাগ প্রেরণ করেন, গরুড়ও তাহাকে ভক্ষণ করেন। এইরূপে ভক্ষিত নাগগণের কঙ্কালরাশি দিন দিন এই স্থানে সঞ্চিত হইতেছে এই শোচনীয় ব্যাপার শুনিয়া, জীমৃতবাহন ব্যথিত হৃদয়ে ভাবিতে লাশিলেন;_অহো! কি আশ্চর্য ! জীর্ণ তৃূণকণার ম্যায় অসার অশুচি এই দেহের জন্যও লোকে পাপাচরণ করে! নাগলোকের কি বিপদ! আমি দেহ দিয়াও যদি একটী নাগের উদ্ধার করিতে পারি, আমার জীবন সার্থক হয়। তিনি এইবূপ .ভাবিতেছেন, এমন সময় মিত্রাবন্থ বিশেষ কাধ্যান্ুরোধে সে স্থান হইতে প্রস্থান করিলেন জীমৃতবাহন্ন বিষাদে মগ্র হইয়া একাকী বিচরণ করিতে লাগিলেন ইত্যবস্রে তিনি দূর হইতে শুনিলেন,-_হা পুত্র শঙ্ঘচুড়! মায়ের সর্ববন্ধধন! কেমন করিয়া গরুড় তোমার এই সুন্দর শরীর তক্ষণ করিবে হায় ! আমি দশ দিক্‌ শুন্য দেখিতেছি_। আর আমার জীবনে কি ফল! দয়াময় পরমেশ্বর ! তুষি. দীনবন্ধু, আমি তোমার চক্ণে শরণ লইলাম, ছুঃখিনীর : জীবনধনকে রক্ষা কর, আমার বাছাফে আগায় ভিক্ষা! দাত উঃ. আমি “কি' পাষাণ! - এখনও বিদীর্ণ হইলাম না”!

জীমৃতবাহন-চরিত। ১৫

লী তি লি লালণীন্দিনি কি দিত কষ পিবিলী লসর পি লী 2 সর লালাতপা সস পা ঠা এছ পলিসি শপ তাত সি খালি 52 তত টি. খে

রস! চন্দ্রানন! একটাবার দাড়াও, আমি তোমার চাদমুখ দর্শন করি?

এই প্রকার করুণাপুর্ণ রোদন গুনিয়! জীমুতবাহন অতিমাত্র ব্যথিত হইলেন, ভাবিতে লাগিলেন, কে এনারী এরূপ কাতরম্বরে রোদন করে ? বুঝি সেই গরুড় আজি ইহার পুত্রকে তক্ষণ করিবে গরুড়ের কি নিষ্ঠুরতা ! যে নৃশংস মাতৃক্রোড় হইতে শিশুসম্তান বিচ্ছিন্ন করিয়া তাহার বক্ষ-স্থল বিদীর্ণ করিতে পারে, নিশ্চয় তাহার হৃদয় বু দিয়া গঠিত। আম আমার প্রাণ দির] উহ্থাকে উদ্ধার করিব। যেব্যক্তি কাতর কগ্টাগতপ্রাণ, জগতে সকলেই, যাহাকে ত্যাগ করিয়াছ্ছে, পুত্রপ্রাণা জননী চতুদ্দিক্‌ শুন্য দোখয়া যাহার জন্য হাহাকার, করিতেছেন, সেই অশরপের যদি রক্ষা করিতে না পারিলাম, তবে দেহ ধারণের ফল কি? তিনি মনে মনে এইস্থির ' করিয়া ভ্রতপদে সেই স্থানে উপস্থিত হইলেন, দেখিলেন,- এক বৃদ্ধা পুত্রকে আলিজন করিয়া রোদন করিতেছেন তিনি সম্মুখে গিয়া কহিলেন,-মা! আপনি স্থির, হউন, কাদিবেন না, ভয় নাই, আমি গরুড়কে নিজ দেহ দান করিয়। আপনার পুত্রকে রক্ষা করিব। অথবা আর কথায় কি ফল, কারোই . ইহা সম্পাদন করি। এই কথা শুনিয়া বৃদ্ধা কহিলেন,---ও বাছা ! অমন *কথা মুখেও আনিও না, তুমি চিরজীবী হও; তোমায় আমার শঙ্খচুড়ে প্রভেদ কি? জথবা তুমি আমার শঙ্খচুড় হইতেও অধিক, কেন না তাহাকে

রঃ চা 7 রা ১৬ গা ২৯০৯৮ %ত তক আত উিঠজিন /* ৮৯০৮৫ ৫৮ ইত সিএস সং ৯5. ছি তত সিকি ৯৬৯ ১৮৫ ৮৯৫৯৮ টিলা + চলত ৪2৯ বাসি কটি তো লট পাছত তত ছি নিছ পাকি র৮ি৮ কী বন আসর উস অএাসন্ছি রিড সিসি

রক্ষা করিতে নিজের প্রাণ দিতে উদ্ভত হইয়াছ শঙখছুড় কহিল,__মহাত্বন্! আপনার অলৌকিক করুণায় মুগ্ধ হইয়াছি। আমার ন্যায় “কত শত ক্ষুত্র প্রাণী জন্মিতেছে মরিতেছেঃ কিন্তু পরহিতে বদ্ধপরিকর ভবাদৃশ মহাপুরুষ জগতে কয় জন জন্মিয়া থাকেন। অতএব আপনি স্বল্প ত্যাগ করুন, আপনার প্রাণতাগে আমার ন্যায় একটামাত্র ক্ষুদ্র প্রাণীর প্রাণ রক্ষা হইবে, কিন্তু আপনি জীবিত থাকিলে শত শত মহাপ্রাণীর উদ্ধার হইবে। অতএব ক্ষাম্ত হউন। ক্সামিও সমুদ্রতটে ভগবান দেবাধিদেবের পুজা করিয়া অবিলম্ষে রাজাভ্ঞা পালন করি। শ্রশ্চুড় ইহা কহিয়া জননীর সহিত জুতপদে প্রস্থান করিল

ইত্যবসরে,, গরুড় আমিতেছে দেখিয়! জীমূতবাহন ভাবিলেন,--অহো! শুভাদৃষ্টক্রমে বুঝি আমার মনোরথ পূর্ণ হইল, এই গরুড় আসিতেছেন। অতএব শঙখখচড় না আমিতে আদিতেই বধ্যশিলায় আরোহণ করি জন্ম জন্ম যেন আমার পরহিতের জন্যই দেহলাভ হয়। তিনি এই ভাবিয়! বধ্যশিলায় আরোহণ করিলেন, এবং পরমানন্দে গরুড়কে নিজ দেহ দান করিলেন। গরুড়ও সুতীব্র চঞ্চকোটি দ্বারা তাহার বক্ষঃস্থল বিদীর্ণ করিয়া ভক্ষণ করিতে লাগিলেন।

গরুড ক্ষণকাল ভোজন করিয়া ভাবিলেন.--একি ! আমি আজন্মকাল নাগকুল ভোজন করিতেছি, কিন্তু এরূপ আশ্চর্য্য কান্ত কখন দেখি নাই! আমি যতই ইহার দেছ

শীমূকিগদ$টিও 07 ভব পপ ৮০০ শিপ সিসসসপি 52777275724 44 খণ্ড খণ্ড করিতেডি, বজ্জসম চঞ্চুত্বারা মন্শ্থান্‌: ব্দীপ করিতেছি, তই ইস্টার বদনে অপূর্বব আনন্দ প্রকাশ পাইতেছে। ইস্কার অলৌকিক ধৈর্য্য প্রসন্নভা দেখিয়া! আমি বিস্মিত হইয়াছি। এখনও ইহার প্রাণবায়ু বহির্গত হয় নাই, অতএব জিজ্ঞাসা, করি--ইনি কে ্‌ এদিকে জীমুততবাহন সুমুযুদশায় পতিত হইয়াও যখন দেখিলেন গরুড় ভোজনে ক্ষান্ত হইলেন) তখন ধীরস্বরে কহিলেন,__মহাতবন! এখনও আমার শিরামুখ দিয়া রক্ত করিতেছে, এখনও আমার দেহমাংস নিঃশেষিত হয় নাই, ্দাপনারও সম্পূর্ণ ক্ষুধাশান্তি হয় শাই, তবে কেন ভোজনে গিরত হইলেন? তাহার সেই কথা শুনিয্বা গরুড় মনে মনে ভাবিতে লাগিলেন,-কি আশ্চব্য ! এই স্ৃত্যুকালেও ইহার এই উক্তি! এই বিষম যন্ত্রণায়ও ইহার এই শান্তি! না জানি ইনি কোন মহাপুরুষ হইবেন! অনন্তর জিজ্ঞাসা করিলেন,__ ছে মহাপুরুষ ! আপনি কে? আপনার এই অন্ভুত ধৈর্য্য শাস্তি দেখিয়া আমি স্তপ্ভিত হুইয়াছি। গরুড় এইক্প জিজ্ঞাসা করিতে করিতেই শবঙ্ঘচুড় তথাক্ব ক্রুতপদ্দে উপস্থিত হইয়া সসগ্রমে কছিল-_কি করেন! কি করেন! অবিচার করিবেন না, হে গ্যরুড় ! ইনি নাগ নছেন, ইঙ্থাকে। পরিত্যাগ করুন, আমাকে ভক্ষন করুন, নাগপতি 'আপনার আহারের নিমিত্ত আজি. আঙ্গাকেই পাঠাইক়্াছেন। লেই সমগ্র শব্খডড়কে তথায় উপস্থিত _বেখিয়া, জীমুতবাহন অত্যন্ত বির হইলেন, ভাবিক্েন, হার? টি হানি

শিক্ষাসার

চে পরি লাস কার পা লিলা ধস তর বর লৌনল সা লী জি আনীত তি পানিও পি সী এয সনি বাী

বুঝি আমার মনোরথ সফল হইয়াও হইল না। গরুড় শঙ্গচুড়কে নিরীক্ষণ করিয়া কহিলেন, 1 ঘদি তোমাকেই নাগরাজ পাঠাইয়াছেন, তবে আমি কোন্‌ মহাত্মাকে সংহার করিলাম? শখচূড় কহিল,--ইনি ধাণ্মিক কুলতিলক বিশ্বহিতৈমী দয়াবীর জীমুতবাহল। হার! আপনি কি সর্বনাশ করিলেন! গরুড় ইহা শুনিয়া! বিষাদে অভিভূত হইয়া ভাবিলেন,- হায় ! আমি কি করিলাম, আমি জীবলোকের পরম বন্ধু জীমুতবাহুনের প্রাণ সংহার করিলাম! নিশ্চয় ইনি এই নাগের প্রাণ রক্ষা করিতে নিজ দেহ দান কবিয়াছেন। আমি ঘোর তু করিয়াছি, অধিক কিঃ* করুণানিধান সংক্ষাৎ বুদ্ধদেবকেই

হার করিয়াছি আমি নিশ্চয দুস্তর পাপপক্ষে নিগগ্ন হুইলান। অনন্তব জীনুতনাহনকে কাহলেন, হে মগাত্বন্‌! আমি বিষম নরকাগ্নির জ্বলায় দগ্ধ হইতেছি, যাহাতে আমার মহা'- পাপের প্রায়শ্চিন্ত হয়, যাহা,ত আমি অসহ্ যন্ত্রণা হইতে মুন্ত হই, আমাকে তাহা বলিয়াদিন। জীমুতবাহনের প্রাণকায়ু তখন কষ্টাগত. তিনি অতি কম্টে কভিলেন,-_বিনতানজ্দন ! তাজি হইতে জীবহিংসা হইতে নিবৃত্ত হউন, লর্ববভূতে অভয় দান করুন' আস্মাকৃত পাপের জন্য অনুতাপ করুন, পর়োপকার তরতে দীক্ষিত হউন, ভ্রম শান্তি, লাভ করিতে পান্গিযেন | খায় আামার বলিবার শক্তি দাই, আমার প্রাণ বহির্গত হইতেছে জাননি। পিতঃ ! আপনাদের চরণে এই আমার শেঘ প্রশান্দ 1 এই কথা ধলাতি বলাতে তিনি ক্ষ খত্রত করিল

জীঘৃতবাহথামস্চরিত

তাহাকে পভানু দেখিয়!, শঙ্খচুড় হাহাকার করিয়া কছিল, স্থা জীমৃতবাহুন | ভা! বিশ্ববন্ধো | হা গুণলিধে ! এই ভতভাগার জন্যই আপনি জীবলোক পরিত্যাগ করিলেন। হা মহাপুকুঘু ! ক1 পরমকারুণিক ! তা পরুঃখকাতর ! হা! অকারণমিত্র ! কোথায় গেলেন ? আমি কাতরস্বরে আপনাকে ডাকিস্েছি, আসিয়া আমার শোক শান্তি করুন হায় রেগরুড় ! আজি ভূমি জগণ্ড অনাথ করিলে ! বিশ্বের আলোক নির্বাণ করিলে | দানতারণ দয়াসিন্ধু জীমুতবাহনকে বিলুপ্ত করিলে! হছে লোকপালগণ ! স্বর্গ হইতে অস্বতধারা বর্ষণ করিয়া এই মহাত্মাকে জীবিভ করুন

এদিকে গরুড় শোকার্ত জদযে চিন্তা করিতে লাগিতে না হায়! আমি এই মহাত্মা আমুলা জাবন হরণ কারলাম ! এক্ষণে কি উপায়ে ইহাকে জীবিত করি, কিরূপে ছুস্তর কলঙ্কসাগর পার হই। শহ্খচুড়ের কথায় ভাল মনে হইল ! দেবলোকে ম্বৃতসঙ্জীবন অমৃত আছে, ক্ষপণকালমধ্যেই দেই অন্বন্গ আনিয়া ইন্থাকে জীবিত করি তিনি ইহ] স্থির করিয়া প্রলয়বেগে নিমেষমধ্যে দেবধামে গমন করিলেন, এবং তথ! হইতে অয্বত শানিয়! জীমূতবাহনের গাত্রে মেচন করিলেন অমৃতম্পর্শে জীমূতবাছনও পুনর্জীবন লাভ করিলেন। তখন ধারুড় তাহার চরণে মন্তরা নহ করিয়া কৃতাঞ্জলিপুটে কহিলেন, -'আমি এতদিন ঘোয্প যোহুনিপ্রায় অভিভূত ছিলাম: কৃপা করিয়! কআগনিই আমাকে জাগরিত রুরিলেন, আমি

হাজীর ৬৯৮৯৮ ইত আন লী উন রা কাত সানি জান রা ওক দা

শিক্ষাসার ! আজি হইতে সর্ববগাকার প্রাণিহিংসায় বিরত হইলাম অখপনি পরহছিতে জীধন বিসঞ্ভন করিয়! যে কীত্তি রাখিলেন, স্কাবৎ চন্দ্র সৃষ্য থাকিবে, আপনার কীস্তি বিষ্কমান থাকিবে? | বলিয়া, বিনতানন্দন বিনীতভাবে স্ষপ্থামে প্রস্থান করিলেন, জীনুতবাহনও আশ্রমে প্রতিগমন করিলেন

নব কী এরি বর, ছিব এনা গছ এপি উরি জী কা লা একি নক 8 চি হ্রাস কলি

পরোপকার।

সকল ধন্মের মন, সংসারের সার, সর্ববমতে সর্বশ্রেষ্ঠ পর-উপকার * সকল পুণ্যের গুরু জানিবে ইহায়, আর যত পুণ্য ল্থু এর তুলনায়। দীনহীন অশরণে যে জন উদ্ধারে, তাহা হতে বড় লোক না৷ দেখি সংসারে ভুবনে ধন্য সেই সাধু মহাশয়, ঈ্ীনছুঃখে গলে ধার কোমল হৃদয় তাকেই দেবত। বলি, যিনি অকাতরে ধন মান দেহ প্রাণ দেন পর-তরে সাধিলে লোকের হিত বে ছুখ তাহায়, তার কাছে স্বর্গ তুচ্ছ বল! যায়। তৃণাগ্রে বারির স্যায় জীবন চর, জন্ধ্যা মেষ শোভা-নম বিভব সকল।

পাগুবগণের মহাপ্রস্ছান 1 ২৯১" প্রন্কাতির এই গতি দেখ সর্বজন, ত্যজ লোভ, পরহিতে কর প্রাণ পথ বিশ্বছিতে সদ ধার হৃদয়ের টান; গ্ররভে ধরুন মাতা সেই সুসম্তান

পাগ্বগণের মহাপ্রস্থান |

পাগুনন্দন যুধিষ্টির হস্তিনার রাজসিংহাসনে অভিষিক্ত হইয়! সাক্ষা্ড ধন্যের হ্যায় প্রজাপালন করিতে লাগিলেন তাহার রাজো বাস করিয়া কেহ ত্বর্থরাজ্যও কামন। করিত ন1। পঞ্চ পাগুব প্রঞ্জাগণের যেন পঞ্চ প্রাণবাধু ছিলেন অসংখা প্রজাপু*ঞ্ুব প্রতিহৃদয়েই সন্তাব এবং সেই বিশাল সাআ্াজ্যের প্রতিগৃহেই শান্তি প্রতিষ্ঠিত ছিল। ভগবান্‌ শ্রীকৃষ্ণ পাগুবগণের পরম বন্ধু ছিলেন। পাগুবেরা ক্ষণকালও তাহাকে ছাড়িয়। থাকিতে পারিতেন না। কালক্রমে যখন সর্ধবনাশকর স্ুরাপানে বিশাল বহুব'শ বিনষ্ট হইল, তখন প্রীকৃষ্ণ মানবলীল। সংবরণ করিলেন। এন্দিকে, কৃষ্ণবিরহে কুফ্গতপ্রাণ পাগুবগণের হৃদয়ে নির্বেবদ জন্মিল। যুধিষ্তির সংসার অনার ভাবিয়া অচিরেই নিজ পার্থিব কণ্তঠব্যসকল লমাপন করিকেন | বআনস্তর পাণুৰেরা সঙ্গ্যাসধর্দ্দ গ্রহণ পূর্বক ত্রৌপদীর সহিত রাজভবন হইতে নিজ্ান্ত হইলেন। একটী কুকুর তীাঙছাগের পশ্চাৎ গ্চা চলিল।

০০০০

২২ টানি | প্রজাবতসল বিতর ঠা হইয়া ঢর্লিলেন, আর ফিরিক্ছেন না, এই বার্ড মুহূর্তধো সর্ধবস্ত্র রটিত হইল, পৌর জানপদবর্গে তুমুল আতন্নাদ উঠিল। গজাপুষ্ের অবিরল অশ্রধারায় ধরণী অভিবিদ্ত হাহাকারে দশ দিক্‌ বিদীর্ণ হইতে লাগিল। গৃহধন্ম ত্যাগ করিয়া সকলে তাহাদের অনুগমন করিতে লাগিল; যুধিষ্ঠির নানামতে বুঝাইয! অনেক কষ্টে তাহাদিগকে ফিরাইলেন অনন্তর, তিনি চারি ভ্রাতা পত্বীর সহিত প্রস্থান করিলেন। সেই কুন্ধুরও ছায়ার ম্যায় তাহাদের অনুগামী হইল ক্রমে তাহারা সমস্ত পৃথিবী প্রদক্ষিণ করিয়া স্বমেরু পর্ববতে উপস্চিত হইলেন তাহার! সেই গিরিবরে আরোহণ করিতে করিতে, তাহ।দর প্রিয়তমা পত্ী ভ্রৌোপদী অকল্পাৎ গতাস্থ হইয়। ভূতলে পতিত হইলেন। তাহাকে পতিত দেখিয়া ভীম যুধিষ্ঠিবকে জিড্ঞাসিলেন,_ক্দাধ্য 1 রাজকুমারী দ্রৌপদী কখন কোন অধন্ম করেন নাই, তবে কি কারণে ইহার পতন হইল ? .. সুধিতির কহিলেন,---'হে পুরুষপুঙ্গব ! রাঁজনন্দিনী কষা . জর্ববাপেক্ষা অফ্ভ্রনের প্রতি অধিক অনুরাগিনী ছিলেন, সেই পক্ষপাতদোষেই শেষে ইহার পতন হইল। যেস্থলে সকলের : প্রতি লমান অনুরাগ স্থাপন করিতে হইবে) সে স্যর পক্ষপান্ত . খ্রক্ষটী মহাপাপ তিনি এই, কথ! বলিয়া পরষাত্মায় চিত্ত সমাহিত করিয়া জগ্রদর হইতে লাগিলেন | অনস্তর, ভীহাগ! : কিছুর আরোহণ করিতে করিছে, সুদে অকল্মাঞ্ণ প্োপন্ুট

পাগুবগণের মহাপ্রস্থান।

ডাধালেগসরা্িত জন্সালালাকি এজ পা আছ রাই রি বরাত ওক চার্জ হলি হছিচঘ দাবাটিলও & ৩৭৯ বক কি ৯১ লাতও লাই সাস্টিসসফিাজরপি শইডো 2 চলিত বর্ন চন্বস্থি কাটি তা বীযাঙা

হইয়া পতিত হইলেন। তাহাকে পতিত দেখিয়া ভীম িিরকে কহিলেন,আধ্য ! যিনি বিনীত, শান্ত সকলের সেবাস্প নিযুক্ত ছিলেন, সেই সহ.দব আজি কি পাপে পতিত হইলেন?

যুধিষ্ঠির কহিলেন,_“ইনি কাহাকেও আপনার সমান বিজ্ঞ বলিয়া! ভল্তান কবিতেন না, এই অভিমানেই রাজকুমার সহদেবের পতন হইল আ'ন্যব অপেক্ষা আপনাকে অধিক বিজ্ঞ মলে কর! একটা মহাপাপ" এই বলিয়া তিনি গমন করিতে লাগিলেন, অবশিষ্ট তিন ভ্রাতা সেই সারের নিঃশব্দে তাহার অনুগমন করিল। কিয় আরোহণ করিতে করিতে, নকুল গতান্থ হইয়া পতিত হইলেন। তাম পুনরায় যুধিষ্ঠিরকে ভিচ্ভাসিলেন,__আধ্য | ধরে বাহার অচলা ভক্তি ছিল, যিনি গুরুজনের মাহ্ভাবহ রূপ অনুপম ছিলেন, আজি কি পাপে সেই নকুলের পতন হইল?

যুধিষ্ঠির কহিলেন,_-ইনি মনে করিতেন যে আমার তুল্য রূপবান গুণবান্‌ মার কেহই নাই নকুল এই পাপেই পতিত হুইলেন। আপনার রবূপগুপণের অভিমান একটা মহাপাপ! বগম ভীম! চলিয়া! আইস, যাহার যে কন্মফল, তাহাকে তাহ! অবশ্যই ভোগ ফরিতে হইবে অনন্তর, তাহার! ক্রমে উদ্ধতর, প্রদেশে আরোহণ করিতে করিতে, বিশ্ববিজয়ী মহাবীর খাজদুন ছিন্নমূল বৃক্ষের ম্যাম অকল্মাৎ পতিত হুইলেন। দিব্য প্রভাব অর্জুনের পতন দেখিয়া, ভীম পুনরায় যুধিষ্ঠিরকে জিজ্ঞালিলেন। বাধ্য | পরিহ্ণাসছলেও ধিনি কখন সির্থা

২৪ খিক্ষাসার |

৬০০

চে ০০০

ককেন নাই, শৌর্ষ্ে বীধ্যে ধিন অদ্বিতীয় ছিলেন, সেঁই পুর্লষসিংহ অঞ্ঞুন আজি কি পাপে পতিত হইলেন ?

যুধিষ্টির, কহিলেন,_-ইনি পৃথিবীর যাবতীয় বীরপুরুষকে লু তান করিতেন, অশেষ গুণের আধার হইয়াও ইনি আত্মাতিমান ত্যাগ করিতে পারেন নাই, এই দোষেই ধনগ্রয়েক পতন হইল। বীরপুরুষের বীধ্যাভিমান একটী মহাপাপ” তিনি ইহ! কহিয়! নিঃশব্দে চলিলেন। একমাত্র ভীম সেই কুকুর তাহার অনুগ।মী হইল। তীহারা কিয়দ্দ্‌র অতিক্রম করিলে, অকস্মাৎ ভীমসেন পতিত হইলেন; যেন স্থমেক্র একটা চুড়। ভাঙ্গিয়া! পড়িল। ভীম, পতনকালে আর্তনাদ করিয়া কহিলেন, আধ্য ! বলুন আমার কি পাপে পতন হইল £

ষুধিষ্ঠির কহিলেন,-_'ভ্রাতঃ ! তুমি জ্ন্তের দিকে না চাহিয়া নিজেই অধিক ভোগ করিতে, এবং সর্বদা নিজ বাহুবলের শ্লাঘা করিতে, এই পাপেই তোমার পতন হুইল” তিনি ইহা কহিয়া, ঈশ্বরে চিত্ত সমাধান প্র্ববক উচ্চতম শিখরে আরোহণ করিতে লাগিলেন এক্ষণে একমাত্র কুকুর তাছার অন্গুগমন করিল। কঠিন পাধাণে পদ তল ক্ষত বিক্ষত হইলেও সারমেয় কিছুতেই তাহার সঙ্গ ছাড়িল না পথিমধ্যে অকস্মাৎ তাহার ' সশ্ুখে দেবর আবিভূতি হইল, স্বয়ং দেবরাজ তাহাতে ব্াসীন ছিলেন স্থুরলাথ বুধিষ্টিরকে সম্বোধন করিয়া কহিজেন,-_.. “বস! আমি স্থরপতি ইন্দ্র, তোমাকে লইতে আলিয়াছি, স্কুনি ক্মলৌকিক পুণ)ঝলে দেবন্োকে আরোহণ কর 4

মি ীহচানিত তি, নি লু সলভ্রমে প্রণাম করিয়া উটিডনিনির তাহাকে কিলেন,--হে হ্বরেশ্বর ! যাহারা আমার আশ্রিত ভক্ষ, খামার সেই প্রাণাধিক আজীয় বন্ধুগণের কি“গতি হইল ? আমি তাহাদিগকে পরিত্যাগ করিয়া একাকী ন্বর্গভোগ করিতে অভিলাধী নহি, আর এই কুকুর ছায়ার ম্যায় আমার সঙ্গে সঙ্গে আসিয়াছে. ভীষণ সঙ্কটেও নিরস্ত হয় নাই। আমি ইহার অনুরাগ দেখিয়া মুদ্ধ হইয়্াছি, অতএব এরূপ ভক্তকে ফেলিয়াই ব1কিরূপে গমন করি। ইন্দ্র কহিলেন,--ছি! ছি! একি কহিতেছ! স্বৃণিত শ্বাপদকে এখনি পরিত্যাগ কর। দেবহুর্লভ সম্পদ তোমার প্রতীক্ষা কুরিতেছে। এই কুক্ুরজাতি অতি ঘআশুটচি হিংস্র হেয়, ইহাকে এখনি ত্যাগ কর।. তাহার সেই কথা শুনিয়া, যুধিষ্ঠির ধীরম্বরে কছ্ছিলেন,--- বিভো] মনুষ্য হউক, শ্বাপদ হউক, কীট হউক,বা কীটাণু হউক, আমার ভক্ত আশ্রিত; আমি তক্ত আশ্রিতের সহিত বরং ঘোর নরকেও যাইব কিন্তু তাহাকে ছাড়িয়া অক্ষ স্বর্গেও যাইব না। ইন্দ্র কহিলেন,_হায়! নিশ্চয় তোমার : মতিভ্রম ঘটিয়াছে, নহিলে একটা অস্পৃশ্য, ক্ষুদ্র অখম শ্বাপদের জন্য স্বর্গের হুখ ত্যাগ করিতেছ। অতএব ছুবুণদ্ছি . পরিত্যাগ কর। যুধিষ্ঠির কহিলেন, __ভঙগবন্‌। আমি ঈশ্বরের প্রেমী স্থির মধ্যে কোন,জীবকেই অন্পৃশ্ট, কষুত্র বা অধম “বলিয়! জ্ঞান করি না। সর্ববজীবে অভেদ ৫্রেম কামার জীবনের .'মহাব্রত মহথাব্রত্ের লিক নতর্গসথখ তুচ্ছ বলিয়া জান করি:।

২৬ শিক্ষাসায়।

সাজি পিঠ

সর্ধবজীবকে আত্মাসম জন্কান করিতে করিতে যদি আমায় নরকে গতি হয়, হউক। ভগবন্! প্রসগ্র হউন; বিশ্বাসপ্রতিপক্স, ভক্ত পীড়ি'ত সহচরকে তাগ করিয়া আমার ন্বর্গভোগে কাজ নাই। আর যদি আমার প্রতি একাস্তই দয়া প্রকাশ করেন, তবে মামার সমস্ত পুণ্য লইয়া এই কুক্ধুর স্র্গে গমন করুক যুধিষ্ঠির এই কথা বলি:ত বলিতেই সেই কুকুর দিবারূপ ধারণ করিল। অনন্তর সেই জ্যোতি্ধায় দিব্যপুকষ ম্ৃতমধুর বাকো যুধিষ্টিরকে সম্বোধন করিয়া কহিলেন,--বস! আমি স্বয়ং ধন্ম,। তোম'কে পরীক্ষা করিতে কুক্ধুরদেহ ধারণ করিপ্লাছিলাম। আমি তোমার এঁকাস্তিক ভক্তি বিশ্বপ্রেমে পুলকিত হইয়াছি। এই সংসার মহাপরীক্ষার সাগর; তুমি অলোকিক ধর্দম-বলে দেই পরীক্ষাসাগর পার হইয়াছ এক্ষণে তোমার কঠোর. সাধনার ফল লাত কর; তুমি অস্বচ্ময় ব্রঙ্মলোকে বাস করিয়! অক্ষয় আনন্দ উপতোগ কর। যুর্িষ্ঠির কহিলেন, _ভগবন্‌! যদি আমার প্রতি সদয় হইয়া থাকেন, তবে যথায় আমার সেই জ্ঞাতি বন্ধু সকলে গমন করিয়াছেন, আমাকেও তথায় লইয়া চলুন। ধন কহিলেন। -বগুস ! সর্ধধোত্তম প্ুণো তুমিই সর্নের্ধাত্তম পদ্দ লাভ করিবে, ভোমার আত্ীয়গণ অধম লোকে গমন করিয়াছেন, অগ্এব কিরূপে তাহাদের সহিত তোমার পুনর্দিলন ঘটিবে ? ' দুপ্িষির ক্ষহিলেন,---প্স্ুখময় হউক, আর ছুখময় হউক, যে শ্থাদে শাদার 'ধিত্ুগণ গদদ করিয়াছেন, আমি সেই শ্বামই

5 2 3 নর 1 কণচারুত | | লী শু মর সা ২৮, 1 চর ] দক

1

কিনা করি ; আর কোন স্থান চাহি না. বন্ধুগণকে চাড়িয়া ক্ষয় ব্রঙ্ষলোকেও বাস.করিবার সাধ নাই :যথায় আমার, বন্ধুরা গন করিয়াছেন, তাহাই আমার ন্যর্গ, আর ষাহা আপনি দিতেছেন তাহা আমার স্বর্গ নহে।”

কর্ণচরিত।

কুস্তীর নন্দন কণ সুতের পালিত, “দাতাকণ' নামে যিনি ভুবনে বিদদিত। অন্ত্রবিষ্কা শিখিবারে বালক যখন, পরশ্ুরামের পদে নিলেন শরণ গুরুভক্তি, সমাধি সংবম, দৃঢ় পণ, হেরি তার তুষ্ট অতি ভূগুর নন্দন। শিখান বাবধ বিষ্তা করিয়া যতল ? শিখেন সে সব কর্ণ করি প্রাণপণ একদিন উপবামে কৃশ মুনিবর ; নিক্রার আবেশে বড় হপলেন কাতর অবশেষে কর্ণ কোলে ঝাখি নিজ শির, অকাতরে নিজ্ঞা যাইলেন স্ৃগুবীর |. ছেনকালে কীট.এক ঘোর রক্ষকায়, তীক্ষদব্ত, রজপানী জ্ঞাজিল গায় £

রর 1 * ১৭৬ £

খু পদ পিটিসি সস চাবির উদ ও.

4 রা &% ঘর / চি

+ ২) টু লীলা সন ছা খপ পন সা পন পাটানি এসি পা আলাপ লীনা উট রত শা উস ছিব উজান পাতা লগিন উনি ৬. জীউ দিল নইন

কর্ণের উরুতে কীট উঠিয়া সবর, অস্থি চ্্ম ভেদ করি পশ্সিল ভিতর

“ব্রদস্তে বজকীট কাটে তীর উরু;

উরুর অপর প্রান্তে নিদ্রা যান গুরু পাছে তার নিদ্রা ভাঙ্গে কীটে নিবারিতে, ভাৰি কর্ণ না পারেন নড়িতে চড়িতে। অশ্িভেদী ঘোর ব্জকীটের দংশন, সহিলেন শিশু কর্ণ অল্লানবদন।

শোণিত লাগিলে গায়ে জাগিয়৷ অমনি; পরম বিল্ময়ে'তবে কহিলেন মুনি

কি তগ্নানক কাজ না জানি তোমার ! কোথা হ'তে বহে ঘন রুধিরের ধার % কহ্‌ কহ শীঘ্ব করি, একি বিপরীত ! কেমনে আইল হেখা এতেক শোণিত

বিনয়বচনে কর্ণ বলেন তখন,

যেইরূপে কীটে উরু করে বিদারণ প্রভুর বিশ্রামভঙ্গে বড় ভয় করি; কীটে না নিবারি তাই, না নড়িতে পারি গুরুদেব | তব শির কোলেতে বিয়া, অটল অচল ভাবে।রয়েছি বসিয়া 1... .. বালক শিষ্যের দৈই সহিষুঃতা শুনি, মনি ছইজেন জামবধ্জ/ঃমুনি |: :.

স্বাঙ্ছারক্ষা। ঘন. ঘন মুখে তার চুম্বন করিয়! : কহিলেন, মুনি, কর্ণে কোলেতে লইয়া ধন্য ধন্য ধৈর্য তব! না দেখি না গী্নি; যে ধর মাগহ বস! দিতেছি এখনি ভূবনবিজয়ী হবে বীরচুড়ামণি ; তোমার ন্পুণ্যে ধন্য হইবে ধরণি। বিস্ময় মানিবে বিশ্ব শুনি তব দান; দাতা কর্ণ নামে তব ঘুধিবে সম্মান তোমার সমান ধৈর্য্য সমাধি বাহার ) দুর্লভ বিভব সব স্থলভ,তাহার

গুরুপদ্দে নতশির হ'য়ে শতবার ; হৃদয়ে রাখেন কণ গুরুর সেবর।

স্বাস্থ্য রক্ষা |

ধর্ম, অর্থ, কাম, মোক্ষ, যাহা কিছু বল; শরীর থাকিলে ভাল'লভি সে সকল। ছেন স্বমঙগল দেহ করিতে রক্ষণ? পরম যতন সবে কর অনুক্ষণ। কুপথ্যে আসক্ত যেই হয় ভুরাচার ; সে হানে আপন গায়ে আপনি কুঠার কিছুদিন রোগভোগ করি সংসারে, মরে মার মেরে/বায় সিজ পরিবারে, .

শিক্ষার

কিন্বা বদি দীর্থকাল বাচে সেইজন, কেবল যাতনা পায় যাবত জীবন ;

* দ! থাকিল যদি স্থখ থাকিতে জীবন ; জীবন অরপ সেই জীবন মরণ

ক্ষণিক সুখের তরে স্বাস্থ্য-ভল্গ যেই করে অকালে জীবনে মরে সেই 'বুদ্ধিহীন ;

যদি হিতে থাকে আশ, সর্ববজনে ভালবাসা, না হইও সর্ববনাশা নেশার * অধীন।

দেহ মন শুদ্ধ যার অনাচার অত্যাচার নিষসম পারহার করে যেই জন; *

তারে না ভূশিতে হয় রোগের যাতনাচয়, সদাকাল সুখময় হেরে সে ভুবন

হও তার সানধান কর দোষ বিষজদ্তান, যদ্দি চাও ধন মান জীবন যৌবনে 3

সময়ে শুনহ হিত না করিও বিপরীত, হও সঙ্দা অবহিত আত্মার পালনে

মন্দ পথে যদি চল নিজেই ভুগিবে ফল,

কুকাজের প্রতিফল ফলে হাতে হাতে ; সংসারে কারে। তলে কেহ নাহি প্রাণে ময়ে যে মরে সে মরে নাহি সন্দেহ তাহাতে।

কা গন্কাণা আলন্িক দেখা পাল!

সাপ পপসীপন্টন হিজল শসা

১৪ ক্ষ) ) 8. $5 স্বাস্থ্য রব | শু 2 নর রর

* $। 58৮85 /িসা্ারিাউস্িটীতাশিরলসপাািপসিান্স্পাক্র পানিবাস্পি ভাস িলো পিস

মা 5 লিপির লীন নি

মরে যেই জলাচারে, আত্মঘাতী বলে তারে, কেবা আছে সংসারে পাপী সম তার ? আত্মঘাতী ছুরাচার, নন্ত নরক' তার। আর সদ হাহাকার হয় তার সার। পরিশ্রম, আর সদ নিয়ম-পালন, ইহাতেই রক্ষা পার দুরললভ জ্রীবন। শ্রোত না বিলে নদী বিকৃত যেমন; চালনা বিহনে দশ! দেহের তেমন। শারীরিক, মানসিক, দুইরূপ শ্রাম। যথাকালে যেই কত্ে রুরিয়া নিয়ম, উন্নতির দ্বার তার হুয় অবারিত, সকল মঙ্গল ফল সে লভে নিশ্চিত। শারীরিক শ্রমে হয় শরীর ধারণ, মানসিক শ্রমে মন লভে জ্ন্তানধন শারীরিক পরিশ্রাম যেব। কাছে যত, নহে হিতকর কেহ ভ্রমণের মত শরীর রাখিতে ভাল হয় ঘদদি মম, সকালে বিকালে নিত্য করিবে আ্রমণ। প্রশল্ত জনঙাহীন রম্য পরিস্কার, বিশুদ্ধ বায়ুর বথ্র সতত সঞ্চীর ; উদ্ভান। নদীর ধার, অথবা মম্বদ্ান ; এসকল ভ্রমণের উপথুক্ক স্বান.।

৩২ শিক্ষাসাঁর

লিন সিলিকা ছি লি টাক কলি সস ০৯ নি তি কলা

সিসির,

খর উচিত যাহা, পরি সে বসন, পুলকিত চিতে নিতা করিবে ভ্রমণ 'নীরোগ সবল দেহ ধরে যেই নর, ব্যায়াম তাহার পক্ষে বড় হিতকর। শীত আর মধুমাস এই মাস চারি, ব্যায়ামের গুণ নাহি বণিবারে পারি অথবা সকল কালে নিজ শক্তিমত, সকলেই ব্যায়াম করিবে নানামত। কপালে বগলে গালে গড়াইলে ঘাম, ঘন শ্বাস বহিলেই ছাড়িবে ব্যায়াম একেবারে পরিশ্রম না কর! যেমনি, অতিশ্রম দোষাবহ জানিৰে তেমনি ব্যায়ামের গুণে কাজে সদা মন যায়, টাচা ছোলা সবল ন্দৃঢ় হয় কায়। নাআসে সহসা! কোন শক্রু তার পাশে, সময়ে জর! মৃত্যু নাহি তারে গ্রাসে বাসস্থান, পাশ, পান, অগান, বসন, শয়ন, ভ্রমণ, ক্রীড়া, সঙ্গ, আলাপন, সকলি নিদ্মল যার আর দেছ মন, জগতে সর্ববসিন্ধি লভে সেই জন।

শা ০০

[ ৩৩ 7

ক্স ছিঠাাশিস্টিপলা শি পর সপ জলি 2. দলা পা সপন শশী রি ৬১০০ এপ্রিল জা নতজপউ ্সিলকী | এ. সিসি পি্পিজি সরস এত পি লরি পস্তিসিসর সি ওসি 5 বত

বাক্পুষ। |.

"এই শ্রাতংস্মরণীয়া নারী কাশ্দীরপতি মহারাজ তু্জীনের মহিষী ছিলেন বাকৃপুষ্টা পতির সহিত ধন্মাসনে অভিষিক্ত হইয়া] সর্বপ্রকার রাজকার্ষ্য পতির সহায়তা করিতে লাগিলেন। মহারাজ তুগ্ীন সেই ধর্মশীলা পত্ঠীর পরামর্শ ভিন্ন কোন কাধ্য করিতেন নাঁ। অন্যান্য গৃহিবীর কাধ্যক্ষেত্র যেরূপ সঙ্থীর্ণ, কেবল আপনার গৃহকাধ্য কতিপয়মাত্র পরিজনের প্রতিপালনেই সীমাবদ্ধ, রাজগৃহিণীর কার্ধ্যক্ষেত্র সেরূপ সন্কীর্ণ নহে যাহার হস্তে অগণ্য পরিজনের অসংখ্য প্রজার প্রতিপালনের ভার, ধাহাকে বিতিন্নপথাবলম্ী কোটি কোর্টি লোকের মনোরঞ্জন করিতে হইবে, ফাহার বিবেচনার উপর একটা' বিশাল রাজ্যের ভর্জাভপ্র নির্ভর করে, তীহার ধৈধ্য, বীধ্য, দয়া, দাক্ষিণ্য কিরূপ হওয়া উচ্চিত, তীহার ধন্মান্ুরাগ পবিত্রতার প্রভ।ব কিরূপ হওয়া উচিত, বাকৃপুষ্টা ইহারই একটা উৎকৃষ্ট দৃষ্টান্ত সেই রাজা রাজ্হী শ্বপ্লকালমধ্যে সমস্ত প্রজার হৃদয় অধি- কার করিলেন সংসারে বিপদ্‌ ভিন্ন মন্ুধ্যের প্রকৃত পরীক্ষা হয় না। যেমন অগ্নি কাঞ্চনের ' পরীক্ষাস্থান, তৈসাঁদি বিপদৃই খার্দিকের পরীক্ষাস্থান। দৈব্ঘর্টনায় তীহার্জের (সেই কঠোর পরীক্ষা আরম্ভ হইল। যেনম্ঠাহার্দের চিভ্রপরীক্ষার জন্যই প্রজামধ্যে এক দুঃসহ দৈব বিপদ্‌ উপস্ছিত হইল'। একদা ভাত্রমাসে, যখন সমস্ত কেদারমণগুল পাকৌনদুখ, শালিশক্রে |

৩৪ শিক্ষানার। সমাচ্ছল্ন, তখন কাশ্মীরে অকস্মাৎ ঘোর তুছিনপাত হইতে লাগিল অচিরেই দেশের সমস্ত শব্য হিমানীগা-্ভ নিমগ্ন হইল, সেই সঙ্গে প্রজার জীবনাশাও বিনষ্ট হইল। ক্রেমে রাজ্যে ঘোর ছুর্ভিক্ষানল প্রজ্বলিত হইল

একটা সম্ভান পীডিত হইলে তাহার গুশ্রাফা পিতামাতার পক্ষে কিরূপ গুরুতর, তাহা একবার ভাবিয়? দেখ ; তাহা হইলে বুঝিতে পারিবে যাহাদের হস্তে অসংখ্য পীড়িতের গুশ্রাষার ভার, তাহাদের কর্তব্য কিরূপ গুরুতর এক্ষণে সেই রাজদম্পতী:র হস্তে হুন্ভিক্ষপীড়িত অনন্ত প্রজার প্রাপরক্ষার ভার পতিত হইল। অন্ন বিনা দেশে হাহাকার উঠিয়াছে ; অনাহারে দিন দিন শত শত লোক প্রাণত্যাগ করিতেছে ; তদ্দর্শনে রাজা রাজভী বিপত্তিহারী জগদীশ্বরের নাম স্মরণ করিয়া প্রজারক্ষায় দীক্ষিত হইলেন। গৃহে, অরণ্যে, পথে, শ্মশানে, আশ্রমে, কান্তারে, আপণে, নদীতটে যে যেখানে অনাহারে পতিত, সাহার! সেই স্থানে উপস্থিত হইয়? তাহার মুখে অন্নজল গুদান করিতে